মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

ভূমি উন্নয়ন কর ত্ত বিভিন্ন ফি

(ক)মিউটেশন/নামজারীঃ
মিউটেশন/নামজারীর আবেদনের সাথে নিম্নবর্ণিত কাগজপত্র দাখিল করতে হয়-
(১) ক্রয়ক্ষেত্রে ক্রয় ও প্রয়োজনীয় বায়া দলিলের কপি।
(২) মৃত্যুরক্ষেত্রে ওয়ারিশ সনদপত্র।
(৩) হেবা দলিলের ক্ষেত্রে হেবা দলিলেরকপি।
      এবং সকল রেকর্ডীয়পর্চা/খতিয়ানের সার্টিফাইড কপি।

মিউটেশনবাবদখরচঃ
(১) আবেদনের কোর্টফি =৫.০০টাকা।
(২) নোটিশ জারীরফি =২.০০টাকা।
(৩) রেকর্ড সংশোধনফি =২০০.০০টাকা।
(৪) পর্চাফি =৪৩.০০টাকা।
মোট=২৫০.০০টাকা (দুইশতপঞ্চাশটাকা)।

কতদিনে মিউটেশনের প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবেঃ
মালিকানা বিষয়ে কোন বিতর্ক না থাকলে আবেদন প্রাপ্তির তারিখ থেকে সর্বোচ্চ ৪৫(পয়তাল্লিশ) দিনের
মধ্যে কার্যক্রম সম্পন্ন করা হবে। মিউটেশনের জন্য সহকারী কমিশনার (ভূমি) বরাবর দরখাস্ত দাখিল করতে হয়।

বিঃদ্রঃ-দরখাস্তজমা দেওয়ার দিন থেকে ৪৫ দিনের মধ্যে মিউটেশন কেস নিস্পত্তি না হলে এবং উল্লেখিত খরচের অতিরিক্ত ফি কেউ দাবী করলে সহকারী কমিশনার (ভূমি)/উপজেলা নির্বাহী অফিসার/রেভিনিউ ডেপুটি কালেক্টর /অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(রাজস্ব)/জেলা প্রশাসক-এর সাথে যোগাযোগ করুন।



(খ)পর্চা/খতিয়ানের সইমোহর নকল সরবরাহঃ
(১) দরখাস্ত দাখিল করতে হবে জেলা প্রশাসক মহোদয়ের কার্যালয়ের মহাফেজ খানা শাখা (রেকর্ড রুম)
(২) সরবরাহের সময় কাল ঃ সর্বোচ্চ ১৫ দিন।

(গ) অর্পিতসম্পত্তি (ভিপি) সংক্রান্তঃ
কোর্ট ফি’র হারঃ
(১) ইজারা নবায়নের দরখাস্তঃ ৫.০০ টাকা।
(২) বিবিধ দরখাস্তঃ ৫.০০ টাকা।

দরখাস্ত নিস্পত্তির নির্ধারিত সময়ঃ
(১) ইজারা নবায়নের দরখাস্তঃ ১০ দিন।
(২) বিবিধ দরখাস্তঃ ১৫ দিন।

বার্ষিকলীজমানীর শ্রেনীভিত্তিক হারঃ
১। কৃষি জমি (প্রতি শতাংশ)--৫.০০ টাকা।
২। অকৃষি আবাসিক জমি (প্রতি শতাংশ)--২০.০০ টাকা।
৩। অকৃষি বানিজ্যিক জমি (প্রতি শতাংশ)--৩০.০০ টাকা।
৪। আবাসিক কাচাঁ ঘর (প্রতি বর্গফুট)--১.০০ টাকা।
৫। আবাসিক আধা পাকা ঘর (প্রতি বর্গফুট)--১.৫০ টাকা।
৬। আবাসিক পাকা ঘর (প্রতি বর্গফুট)--৩.৫০ টাকা।
৭। বানিজ্যিক কাচা ঘর (প্রতি বর্গফুট)--৪.০০ টাকা।
৮। বানিজ্যিক আধা পাকা ঘর (প্রতি বর্গফুট)--৪.০০ টাকা।
৯। বানিজ্যিক পাকা ঘর (প্রতি বর্গফুট)--৪.০০ টাকা।
১০। নিজ অর্থায়নে অনুমতি নিয়ে উত্তেলিত ঘরের ক্ষেত্রে খালি জমির লীজমানি সহ ঘরের জন্য নির্ধারিত
হারের ২০%।
১১। ফল/ফলের বাগান/পুকুর/দিঘি/ঝিল নিলামের মাধ্যমে বন্দোবস্ত করা হয়ে থাকে।

বিঃদ্রঃ-নির্ধারিত হার ও সময় কালের অনুরুপ ব্যত্যয় ঘটলে সাথে সাথে সংশ্লিষ্ট উপজেলা নির্বাহী অফিসার অথবা রেভিনিউ ডেপুটি কালেক্টরকে জানাতে সংশ্লিষ্টদের অনুরোধ করা হলো।

আপনি জানেন কি জমির মালিকানা/স্বত্বপ্রমাণের জন্য কি কি দরকারঃ
      -জমির ভোগদখল
      -হালনাগাদ খাজনার রশিদ
      -বৈধ দলিল
      -মিউটেশন/নামপত্তন

কৃষি জমির ভূমি উন্নয়ন করের (খাজনার) হারঃ
২৫ বিঘা (৮.২৫ একর) পর্যন্ত কৃষি জমির ভূমি উন্নয়ন কর (খাজনা) মওকুফ।
৮.২৬ একর থেকে ১০.০০ একর পর্যন্ত জমির জন্য প্রতি শতাংশে ০.৫০ টাকা।
১০.০০ একরের উর্ধ্বে জমির জন্য প্রতি শতাংশে ১.০০ টাকা।
৮.২৫ একরের নিচে জমির মালিক গণ ২.০০ টাকা জমা দিয়ে খতিয়ানের দাখিলা গ্রহন করতে পারবেন।

(ঘ)অকৃষি জমির ভূমি উন্নয়ন করের (খাজনার) হার(আবাসিক)-
১। জেলা সদরের পৌর এলাকার জন্য প্রতি শতাংশে ৭.০০ টাকা।
২। জেলা সদরের পৌর এলাকাভূক্ত শিল্প/ বানিজ্যিক কাজে ব্যবহৃত জমি প্রতি শতাংশে ২২.০০ টাকা।
৩। জেলা সদরের বাইরে পৌর এলাকার জন্য প্রতি শতাংশে ৬.০০ টাকা।
৪। জেলা সদরের বাইরে পৌর এলাকাভূক্ত শিল্প/ বানিজ্যিক কাজে ব্যবহৃত জমি প্রতি শতাংশে ১৭.০০ টাকা।
৫। পৌর এলাকা ঘোষিত হয়নি এরুপ এলাকার পাকা ভিটা/ বাড়ীর জন্য প্রতি শতাংশে ৫.০০ টাকা।
৬। পৌর এলাকা ঘোষিত হয়নি এরুপ এলাকাভূক্ত শিল্প বানিজ্যিক কাজে জমি প্রতি শতাংশে ১৫.০০ টাকা।

(ঙ)হাট-বাজারেরঅকৃষি খাস জমি (ভিটি জমি) একসনা বন্দোবস্ত সংক্রান্তঃ
আবেদন পত্রের সহিত প্রদত্ত কোর্ট ফির হার-৫.০০ টাকা।
বন্দোবস্তের মেয়াদ ০১লা বৈশাখ হতে ৩০শে চৈত্র পর্যন্ত।
একসনা বন্দোবস্ত নবায়ন যোগ্য ।

 

একসনা ইজারা হারঃ
এলাকার নাম প্রতিবর্গ মিটার
জেলা সদর ১২৫/-
জেলা সদও ব্যতিত পৌর এলাকা ১০০/-
উপজেলা সদর ৫০/-
অন্যান্য ১৩/-

(চ)অকৃষি খাস জমি দীর্ঘমেয়াদী বন্দোবস্ত সংক্রান্তঃ
১। সরকারি অকৃষি খাস জমি বন্দোবস্ত পাওয়ার জন্য ৫/- টাকার কোর্ট ফি দিয়ে জেলা প্রশাসকের নিকট দরখাস্ত দাখিল করতে পারবেন। আবেদন পত্রের সহিত প্রার্থীত জমি যে উদ্দেশ্যে ব্যবহারের জন্য বন্দোবস্ত চাওয়া হয়েছে তা ব্যতিরেকে অন্য কোন উদ্দেশ্যে ব্যবহার করা হবে না মর্মে অঙ্গিকারনামা (এফিডেভিট) দাখিল করতে হবে।
২। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য আবেদন পত্রখানা জেলা প্রশাসকের কার্যালয় হতে উপজেলা ভূমি অফিসে প্রেরণ করা হয়।
৩। সরেজমিনে পরিমাপ, তদন্ত ও নীতিমালায় উল্লেখিত শর্ত সাপেক্ষে প্রার্থীত ভূমি বন্দোবস্ত প্রদানের যোগ্য হলে কেস নথি সৃজন পূর্বক জমির মূল্য নির্ধারণ করে স্কেচ ম্যাপ, রেন্ট রোল ইত্যাদির সমন্বয়ে একটি প্রস্তাব উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রেরণ করা হয়। জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রেরণ করার পর তা যথাযথ কি-না পরীক্ষান্তে প্রস্তাবটি অনুমোদনের জন্য ভূমি মন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করা হয়।

(ছ)কৃষিখাস জমি একসনা বন্দোবস্ত সংক্রান্তঃ
আবেদন পত্রের সহিত প্রদত্ত কোর্ট ফির হারঃ ৫.০০ টাকা।
বন্দোবস্তের মেয়াদ ১লা বৈশাখ হতে ৩০শে চৈত্র পর্যন্ত।
একসনা বন্দোবস্ত নবায়ন যোগ্য নয়।
একসনা ইজারা হার (প্রতি একর)-৫০০.০০ টাকা।

(জ)কৃষিখাস জমি স্থায়ী বন্দোবস্ত সংক্রান্তঃ
যে কোন ভূমিহীন পরিবার সরকারি খাস জমি বন্দোবস্ত পাওয়ার জন্য সহকারী কমিশনার (ভূমি) এর নিকট নির্ধারিত ফরমে দরখাস্ত দাখিল করতে পারবেন।
আবেদনপত্রের সহিত যা জমা দিতে হবেঃ-
১। সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড মেম্বার/চেয়ারম্যানকর্তৃক সত্যায়িত ০২ কপি ফটো।
২। স্থানীয় ইউ.পি /চেয়ারম্যান কর্তৃক প্রদত্ত নাগরিকত্ব সার্টিফিকেট।

উপজেলা কৃষি খাস জমি ব্যবস্থাপনা ও বন্দোবস্ত কমিটি প্রাপ্ত আবেদনপত্র সমূহ যাচাই-বাছাই পূর্বক প্রকৃত ভূমিহীন পরিবারের তালিকা প্রস্তুত ও জমি বরাদ্দের পরিমাণ নির্ধারণ করবেন। এর ২১ দিনের মধ্যে সহকারী কমিশনার (ভূমি) বন্দোবস্ত কেস রেকর্ড সৃজন পূর্বক উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর নিকট প্রেরণ করবেন। উক্ত কেস রেকর্ড পরবর্তী ২১ দিনের মধ্যে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রেরণ করা হবে।

জেলা প্রশাসকের কার্যালয় হতে অনুমোদিত প্রস্তাব ফেরৎ পাওয়ার পরে ১/-টাকা সেলামীর বিনিময়ে বন্দোবস্ত প্রাপকের অনুকূলে কবুলিয়ত সম্পাদন,খতিয়ান খোলা ও বন্দোবস্তকৃত জমির দখল বুঝিয়ে দেয়া হবে।